April 15, 2024, 6:41 am
সর্বশেষ:
মেঘনায় বর্ণাঢ্য আয়োজনে বাংলা নববর্ষ উদযাপিত মেঘনায় কাঁঠালিয়া প্রজন্ম সামাজিক সংস্থার ঈদ সামগ্রী বিতরণ মেঘনায় বিনোদন কেন্দ্র না থাকায় ঈদ আনন্দে ভাটা, নিরসন জরুরি এততান কিরতি আনছত, ঘরে আছেনা! মেঘনায় গণ ও যুব অধিকারের ইফতার বিতরণ রাস্তা ও ড্রেন নির্মাণ কাজে নিম্নমানের নির্মাণসামগ্রী ব্যবহার ফতেহাবাদ ইউনিয়ন আওয়ামী মৎসজীবী লীগ : খোকন সভাপতি শরীফ হোসেন সম্পাদক মেঘনায় দোকানে আগুনের ঘটনায় বাবাসহ দুই ছেলের বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রথম বারের মত শতভাগ অনলাইনে মনোনয়ন ফরম জমা দিবে প্রার্থীরা : মো.মুনীর হোসাইন খান রিটার্নিংকর্মকর্তার সাথে আচরণ বিধির মতবিনিময়ের পরেই এক প্রার্থী অপর প্রার্থীকে হুমকির অভিযোগ 

২৪ মে ২০১৯ ,বিন্দুবাংলা টিভি. কম ,ডেস্ক রিপোর্ট :   লোকসভা নির্বাচনে বিজেপি নেতৃত্বাধীন জোট ন্যাশনাল ডেমোক্রেটিক অ্যালায়েন্সকে (এনডিএ) একটি ঐতিহাসিক জয় উপহার দিয়ে দেশের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে আবারও শপথ নিতে যাচ্ছেন নরেন্দ্র মোদী। বুধবার (২৯ মে) তিনি দ্বিতীয়বারের মতো এ শপথ নেবেন বলে স্থানীয় সংবাদমাধ্যম জানিয়েছেন তিনি।

যদিও সব ধরনের জরিপই বলছিল ক্ষমতাসীন বিজেপিই আবার দিল্লির দখলে যাচ্ছে, তারপরও সবার মধ্যে একটা কৌতুহল ছিল কারা আসছে ভারতের পরবর্তী সরকারে। অবশেষে বৃহস্পতিবার (২৩ মে) সে কৌতুহল মিটেছে বিজেপির এক চমকপ্রদ জয়ের মাধ্যমে।

এর আগে গত ১১ এপ্রিল থেকে শুরু হয়ে ১৯ মে পর্যন্ত সাত ধাপে অনুষ্ঠিত হয় দেশটির লোকসভা নির্বাচন। ২৯টি রাজ্য ও ৭টি কেন্দ্রীয় অঞ্চলের ৫৪২টি আসনে ছিল এ ভোটের আয়োজন। ৫৪৩টি আসনে ভোট হওয়ার কথা ছিল, কিন্তু ভেলোর আসনে নির্বাচন স্থগিত করা হয়।

নির্বাচনের চূড়ান্ত ফলাফল অনুযায়ী, ৫৪২টি আসনের মধ্যে এনডিএ জোট পেয়েছে ৩৫০টি, কংগ্রেসের নেতৃত্বাধীন ইউপিএ জোট পেয়েছে ৮৩টি এবং এনডিএ জোটের ২৯০টি আসন পেয়েছে বিজেপি। এ হিসেবে বিজেপি একাই সরকার গঠন করার মতো আসন পেয়ে গেলো।

দেশটিতে সরকার গঠন করতে হলে যেখানে ২৭২ আসনের প্রয়োজন, সেখানে জোট ছাড়াই শুধু বিজেপি পেয়েছে তার চেয়ে আরও ১৮ আসন বেশি। তাই এবার ক্ষমতাসীনদের আবার নতুন করে সরকার গঠনের পালা শুধু।

ভারতীয় রাজনীতি বিশ্লেষকদের মতে, নরেন্দ্র মোদীর দক্ষ নেতৃত্ব এবং বিচক্ষণ রাজনীতির কারণেই জনগণের রায়ে বিজেপি জোটের নিরঙ্কুশ জয় সম্ভব।

 


আপনার মতামত লিখুন :

মন্তব্য করুন


ফেসবুকে আমরা