July 14, 2024, 4:13 pm

ছাগলনাইয়ায় চলন্ত সিএনজি অটোরিক্সা থেকে লাফ দিয়ে অপহরণকারীদের কবল থেকে নিজেকে রক্ষা করল কলেজ ছাত্রী

৩০ জুন ২০১৯, বিন্দুবাংলা টিভি. কম,   ডেস্ক রিপোর্ট :

সৈয়দ কামাল,ফেনী থেকেঃফেনীর ছাগলনাইয়ায় ২৯ জুন শনিবার বিকালে এক কলেজ ছাত্রী ছাগলনাইয়া পৌর শহরে যাওয়ার উদ্দেশ্যে বাড়ীথেকে বের হয়ে,পৌর এললাকাধীন রেজুমিয়া সিএনজি অটোরিক্সা স্ট্যান্ড থেকে ছাগলনাইয়া অভিমূখী যাত্রীবিহীন একটি সিএনজিতে উঠে বসেন,চালক কলেজ ছাত্রীটিকে নিয়ে ছাগলনাইয়া পৌর শহরের দিকে কিছুদূর গিয়ে তার সিএনজি অটোরিক্সাটিতে আরো দুই যুবককে তুলে নিয়ে,হঠাৎ রাস্তার মধ্যে সিএনজি অটোরিক্সাটিকে ঘুরিয়ে দিয়ে,কলেজ ছাত্রীটি যে স্থান থেকে সিএনজি অটোরিক্সায় উঠেছিল,সে স্থান থেকে সামান্য সামনে এসে সিএনজিটি পাঠাননগর ইউনিয়নের বাথানিয়া গ্রামের দিকে প্রবেশ করা কালীন ছাত্রীটি কৌশলে চলন্ত সিএনজি অটোরিক্সাটি থেকে লাফ দিয়ে নেমে নিজেকে অপহরণকারীদের কবল থেকে রক্ষা করলেন।ওই সময় ঘটনাস্থলে উপস্থিত থাকা জনগণ বিষয়টি বুঝতে পেরে দ্রুত অপহরণকারীদের সিএনজি অটোরিক্সাটির পিছু নিয়ে,অপহরণকারীদের নিজ গ্রাম বাথানিয়া গ্রামের বিতর থেকে সিএনজি অটোরিক্সাটিসহ দুই অপহরণকারীকে ধরে ঘটনাস্থলে উত্তম মধ্যম প্রহার করে সিএনজি স্ট্যান্ডে নিয়ে আসেন।পরে স্থানীয়রা দুই অপহরণকারীসহ ভিকটিমকে ছাগলনাইয়া থানা পুলিশের হাতে তুলেদেন।
অপহরণকারী ওই দুই জনেরই বাড়ী পাঠাননগর ইউনিয়ননের বাথানিয়া গ্রামে,তাদের একজন হলেন ওই গ্রামের মনির আহম্মদের পুত্র,আবদুল লতিফ অপর জন ও একই গ্রামের আবদুল খালেকের পুত্র,আলমগীর হোসেন।
অপহরণের ঘটনার বিষয় ছাগলনাইয়া থানার অফিসার ইনর্চাজ (ওসি) মেজবাহ্ উদ্দিন আহম্মদ জানান,অপহহরণকারী দুই আসামীকে থানা হাজতে এবং ভিকটিমকে রাখা হয়েছে মহিলা পুলিশের হেফাজতে।আমরা ধৃত আসামীদের জিজ্ঞাসাবাদ করলে তারা ঘটনার সাথে নিজেদের জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেন এবং কি এই ঘটনার সাথে আরো দুই জনের জড়িত থাকার কথা ও জানান।ঘটনার সাথে জড়িত থাকা পলাতক ওই দুই আসামীকে গ্রেপ্তারে আমাদের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।
অপহরণের ঘটনার বিষয় ভিকটিমকে বাদী করে থানায় মামলা গ্রহণের প্রস্তুতি চলছে, মামলাটি রুজু হওয়ার পর ভিকটিমকে কার হেফাজতে দেওয়া হবে সে বিষয় পুলিশের জেলা পর্যায়ের উর্ধতন কর্মকর্তাদের সিদ্ধান্ত দেওয়ার উপর নির্ভর করছে বলে জানাান, ছাগলনাইয়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) সুদ্বীপ রায় পলাশ।


আপনার মতামত লিখুন :

মন্তব্য করুন


ফেসবুকে আমরা